Notice

ডিপ্লোমা ইন টেক্সটাইল ইঞ্জিনিয়ারিং ভর্তি বিজ্ঞপ্তি

ডিপ্লোমা ইন টেক্সটাইল ইঞ্জিনিয়ারিং ভর্তি বিজ্ঞপ্তি প্রকাশিত হয়েছে। ২০১৯-২০২০ শিক্ষাবর্ষে বস্ত্র ও পাট মন্ত্রণালয়ের অধীনে বস্ত্র অধিদপ্তর পরিচালিত বিভিন্ন টেক্সটাইল কলেজে অনলাইনে আবেদন করা যাবে। শহীদ রব সেরনিয়াবাত টেক্সটাইল ইনস্টিটিউট, গৌরনদী বরিশাল টেক্সটাইল ইনস্টিটিউট, টাংগাইল, দিনাজপুর, রংপুর, নাটোর, চট্টগ্রাম ও খুলনা টেক্সটাইল ইনস্টিটিউটে ডিপ্লোমা ইন টেক্সটাইল ইঞ্জিনিয়ারিং এবং টেক্সটাইল ইনস্টিটিউট টাংগাইলে ডিপ্লোমা ইন জুট টেকনোলজি কোর্সে ছাত্র ছাত্রীরা এসএমএস এর মাধ্যমে আবেদন করতে পারবেন।

আবেদনের সময়সূচি:
ভর্তির জন্য আবেদন/ এসএমএস শুরু ১৫ মে ২০১৯ তারিখে। আবেদন করার শেষ তারিখ ১৬ জুন ২০১৯ তারিখে। ভর্তির জন্য নির্ধারিত প্রার্থীদের মেধা এবং অপেক্ষমান তালিকা প্রকাশ হবে ২০ জুন ২০১৯ তারিখে। ক্লাস শুরু হবে ১ আগষ্ট ২০১৯ তারিখে।

২. ভর্তি পরীক্ষায় অংশগ্রহণের যােগ্যতাঃ (ক) প্রার্থীকে অবশ্যই জন্মগতভাবে বা নাগরিকত্ব গ্রহণে বাংলাদেশের স্থায়ী বাসিন্দা হতে হবে। (খ) ২০১৭, ২০১৮ ও ২০১৯ সালে দেশের সকল শিক্ষা বোর্ড এবং বাংলাদেশ উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনে অনুষ্ঠিত এসএসসি/দাখিল/এসএসসি (ভােকেশনাল)/দাখিল (ভােকেশনাল)/সমমানের পরীক্ষায় উত্তীর্ণ এবং ছেলেদের ভর্তির ক্ষেত্রে সাধারণ গণিতু বা উচ্চতর গণিতে জিপিএ ৩.০০ সহ কমপক্ষে জিপিএ ৩.৫০ প্রাপ্ত শিক্ষার্থীরা এবং মেয়েদের ভর্তির ক্ষেত্রে সাধারণ গণিত বা উচ্চতর গণিতে
খিীরা এবং ‘ও’ লেভেলের যে কোন একটি বিষয়ে সি’ গ্রেড এবং গণিতসহ অন্য যে কোন | দুটি বিষয়ে ন্যনতম ‘ডি’ গ্রেড পেয়ে উত্তীর্ণ শিক্ষার্থীরা ২০১৯-২০২০ শিক্ষাবর্ষে ভর্তির জন্য আবেদন করতে পারবে।
৩. মোবাইল ফোনের মাধ্যমে ভর্তির আবেদন প্রক্রিয়াঃ (ক) শুধু টেলিটক মোবাইল ফোনের মাধ্যমে আবেদন গ্রহণ করা হবে। ভর্তি বিজ্ঞপ্তি প্রচার, ভর্তি কার্যক্রম, ব্যবস্থাপনা, ফলাফল প্রণয়ন ইত্যাদি ব্যয়। বাবদ সর্বমােট আবেদন ফি ৩৩০/- (তিনশত ত্রিশ) টাকা মাত্র কেটে নেয়ার জন্য সংশ্লিষ্ট মােবাইলে পর্যাপ্ত টাকা থাকতে হবে। (খ) ভর্তি পরীক্ষায় আবেদনের জন্য একটি টেলিটক প্রিপেইড মােবাইল ফোন থেকে 16222 নম্বরে SMS করতে হবে। (গ) একটি টেলিটক প্রিপেইড মােবাইল ফোনের মাধ্যমে Message অপশনে গিয়ে DOT লিখে, স্পেস দিয়ে SSC শিক্ষাবাের্ডের নামের। প্রথম তিনটি অক্ষর লিখে স্পেস দিয়ে বাের্ড রােল নম্বর লিখে, স্পেস দিয়ে SSC পাসের সাল লিখে, স্পেস দিয়ে যে প্রতিষ্ঠানে ভর্তি হতে ইচ্ছুক সেই শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের পছন্দ অনুযায়ী নামের কোড লিখে স্পেস দিয়ে পছন্দের কোর্সের নামের কোড লিখে, স্পেস দিয়ে কোটার শব্দ সংক্ষেপ লিখে 16222 নম্বরে SMS করতে হবে। উদাহরণ : DOT>DHA 123456<>2019<>BDTNRCKTEFF উদাহরণটির শব্দ সংক্ষেপগুলাে যথাক্রমে বস্ত্র অধিদপ্তর DOT, যে বাের্ড হতে এসএসসি পাশ (ঢাকা বাের্ড) DHA, এসএসসির রােল নম্বর ১২৩৪৫৬, পাশের সন ২০১৯ ভর্তির জন্য ১ম পছন্দ শহীদ আবদুর রব সেরনিয়াবাত টেক্সটাইল ইনস্টিটিউট, গৌরনদী, বরিশাল, ২য় পছন্দ টেক্সটাইল ইনস্টিটিউট, দিনাজপুর, ৩য় পছন্দ, টেক্সটাইল ইনস্টিটিউট, টাংগাইল, ৪র্থ পছন্দ টেক্সটাইল ইনস্টিটিউট, নাটোর, ৫ম পছন্দ টেক্সটাইল ইনস্টিটিউট, রংপুর, ৬ষ্ঠ পছন্দ, টেক্সটাইল ইনস্টিটিউট, চট্টগ্রাম, ৭ম পছন্দ টেক্সটাইল ইনস্টিটিউট, খুলনা। যে কোর্সে ভর্তি হতে ইচ্ছুক (ডিপ্লোমা-ইন-টেক্সটাইল ইঞ্জিনিয়ারিং) TE, মুক্তিযােদ্ধা কোটার জন্য FF। মােবাইল ফোনের Message অপশনে যে সুকল শব্দ সংক্ষেপে ব্যবহার করা হবে তা নিম্নরুপঃ শিক্ষাবাের্ডঃ ঢাকা DHA, সিলেট SYL, বরিশাল BAR, চট্টগ্রাম CHI, কুমিল্লী COM, দিনাজপুর DIN, যশোর JES, মাদ্রাসা MAD রাজশাহী RAJ, বাংলাদেশ কারিগরি শিক্ষাবাের্ড TEC এবং বাংলাদেশ উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয় BOU; ভর্তির জন্য শিক্ষা প্রতিষ্ঠান (টাংগাইল টেক্সটাইল ইনস্টিটিউট T, দিনাজপুর টেক্সটাইল ইনস্টিটিউট D, শহীদ আবদুর রব সেরনিয়াবাত টেক্সটাইল ইনস্টিটিউট, গৌরনদী, বরিশাল B, টেক্সটাইল ইনস্টিটিউট, নাটোর N, টেক্সটাইল ইনস্টিটিউট, রংপুর R, টেক্সটাইল ইনস্টিটিউট, চট্টগ্রাম C, টেক্সটাইল ইনস্টিটিউট, খুলনা K)। পছন্দের কোর্সের নামঃ ডিপ্লোমা ইন টেক্সটাইল ইঞ্জিনিয়ারিং TE, ডিপ্লোমা ইন জুট টেকনােলজি JT; কোটার জন্য (সাধারণ কোটা GQ. মুক্তিযােদ্ধা সন্তান/সন্তানের সন্তান FF, মহিলা FM, টেক্সটাইল ভােকেশনাল TV, এবং ক্ষুদ্র নৃ-গােষ্ঠী TR লিখতে হবে)। (ঘ) উপরের SMS টি পাঠানাের পর সকল তথ্য সঠিক হলে ফিরতি SMS এ আবেদনকারীর নাম, ভর্তির ফি ও একটি PIN জানিয়ে সম্মতি চাওয়া হবে। তখন 16222 নম্বরে আরেকটি SMS পাঠিয়ে সম্মতি জানাতে হবে। সম্মত্তি জানানাের জন্য প্রথমে DOT লিখে, স্পেস দিয়ে YES লিখে, স্পেস দিয়ে PIN লিখে, স্পেস দিয়ে আবেদনকারীর যােগাযােগের জন্য নিজের ব্যবহৃত (যে কোন অপারেটর এর) একটি মােবাইল নম্বর লিখে 16222 নম্বরে SMS করতে হবে। উদাহরণঃ DOTYES 65432101xxxxxxxxx এখানে 654321 এর জায়গায় আবেদনকারীর নিজ PIN এবং 01xxxxxxxxx এর জায়গায় নিজের ব্যবহৃত মােবাইল ফোন নম্বর বসাতে হবে। আবেদনকারীর টেলিটক মােবাইলে পর্যাপ্ত পরিমাণ টাকা থাকলে তা থেকে ভর্তি পরীক্ষার ফি ৩৩০/- (তিন শত ত্রিশ) টাকা কেটে নিয়ে একটি SMS এর মাধ্যমে সাথে সাথেই নিশ্চিত করা হবে এবং একটি রােল নম্বর দেয়া হবে। একবার আবেদন করলে তা প্রত্যাহার করা যাবে।
এবং একই কোর্সে অন্য কোন প্রতিষ্ঠানে আবেদন করা যাবে না। (ঙ) একবার এসএমএস করে ফি জমাদান করলে তা প্রত্যাহার করা যাবে না। রেজিস্ট্রেশন প্রক্রিয়ায় কোনরূপ সমস্যার সম্মুখীন হলে তা নিম্মােক্তভাবে জানা যাবেঃ একটি টেলিটক নম্বর থেকে DOT<space>HELP<space>PIN<space>PIN No and send to 16222 উদাহরণ: DOT HELP PIN 987654 and send to 16222 ৪. প্রতিটি ফিরতি এসএমএস ভালভাবে পভূতে হবে। ৫. সংরক্ষিত কোটায় ছাত্র/ছাত্রী ভর্তি সম্পর্কিত। প্রতিটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে প্রতি কোর্সের জন্য মহিলা ১০% আসন ক্ষুদ্র নৃ-গােষ্ঠী ২টি করে আসন, মুক্তিযােদ্ধা/শহীদ মুক্তিযােদ্ধার পুত্র-কন্যার পুত্র কন্যা ৫ আসন এবং শুধুমাত্র বস্ত্র অধিদপ্তর নিয়ন্ত্রিত টেক্সটাইল ভােকেশনাল ইনস্টিটিউট হতে এসএসসি (টেক্সটাইল ভােকেশনাল) পাশছাত্র-ছাত্রীদের জন্য ৩০% আসন সংরক্ষিত থাকবে এবং উক্ত আসনে মেধা অনুযায়ী ভর্তি করা হবে। ৬, গুরুত্বপূর্ণ তথ্যাবলীঃ (ক) ভর্তির জন্য যােগ্য প্রার্থীগণকে ভর্তির সময় অবশ্যই এসএসসি পরীক্ষার মূল ট্রান্সক্রিপ্ট/মার্কসিট, সংরক্ষিত আসনের ক্ষেত্রে যথাযথ কর্তৃপক্ষ কর্তৃক সনদের মুল কপি প্রতিষ্ঠানে জমা দিতে হবে। অন্যথায় ভর্তির যােগ্যতা বাতিল বলে গণ্য হবে। মুক্তিযােদ্ধা সন্তান কোটার ক্ষেত্রে কেবলমাত্র মুক্তিযোদ্ধা বিষয়ক মন্ত্রণালয় কর্তৃক ইস্যুকৃত মূল সনদু গ্রহণযোগ্য। আবেদনকারী মুক্তিযোদ্ধা/শহীদ মুক্তিযোদ্ধার পুত্র-কন্যার পুত্র কন্যা হলে সে মর্মে সংশ্লিষ্ট ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান/সিটি করপােরেশনের ওয়ার্ড কাউন্সিলর ও পৌরসভার মেয়র কাউন্সিলর কর্তৃক প্রদত্ত সার্টিফিকেটের ২টি সত্যায়িত কপি জমা দিতে হবে। এ ক্ষেত্রে ভর্তি কর্তৃপক্ষের সিদ্ধান্ত চূড়ান্ত বলে বিবেচিত হবে। (খ) ক্ষুদ্র নৃ-গােষ্ঠী প্রার্থীদের প্রমাণের জন্য সূংশ্লিষ্ট ইউনিয়ন পরিষদ বা পৌরসভা চেয়ারম্যান কর্তৃক প্রদত্ত সনদপত্র জমা দিতে হবে। (গ) সরকার নির্ধারিত সকল কোটায় প্রচলিত বিধি অনুযায়ী ভর্তির পর কোন আসন শূন্য থাকলে তা সাধারণ মেধা তালিকা হতে পূরণ করা হবে। (ঘ) ভর্তির সময় সকল প্রার্থীকে তাদের এসএসসি/সমমান পরীক্ষা পাশের প্রমাণ হিসেবে বাের্ড হতে প্রদত্ত মূল নম্বরপত্র/ ট্রান্সক্রিপ্ট সংশ্লিষ্ট শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে সংরক্ষণের জন্য জমা দিতে হবে। শিক্ষাক্রমের সর্বশেষ পরীক্ষা পর্যন্ত উল্লিখিত মূল নম্বরপত্র(টান্সক্রিপ্ট সংশ্লিষ্ট শি প্রতিষ্ঠানে জমা থাকবে। এ সময়ের মধ্যে কোন প্রার্থী উক্ত নম্বরপত্র/ ট্রান্সক্রিপ্ট ফেরত চাইলে প্রতিষ্ঠান তার ভর্তি বাতিল করে তা ফেরত দিতে পারবে। (ঙ) ভর্তিকৃত কোন শিক্ষার্থী ক্লাস শুরুর ৭(সাত) কার্যদিবসের মধ্যে ক্লাসে যােগদান করতে ব্যর্থ হলে তার ভর্তি বাতিল বলে গণ্য হবে। উক্ত শূন্য আসন পরবর্তী ৭(সাত) কার্যদিবসের মধ্যে অপেক্ষমাণ তালিকা হতে মেধাক্রমানুসারে পূরণের ব্যবস্থা করা যাবে। (চ) ফলাফুল কেন্দ্রীয়ভাবে বস্ত্র অধিদপ্তর হতে প্রকাশ করা হবে যা সংশ্লিষ্ট অন্যান্য প্রতিষ্ঠানের ওয়েবসাইট ও নােটিশ বাের্ডেও পাওয়া যাবে। এছাড়া ভর্তির জন্য নির্ধারিত ছাত্রছাত্রীদের SMS-এর মাধ্যমে ফলাফল জানানাে হবে।

৮. প্রার্থী নির্বাচন/মেধা তালিকা প্রণয়ন ও (ক) ২০১৯ ও ২০১৮ সালে এসএসসি পাশকৃত ছাত্র/ছাত্রীদের ক্ষেত্রে জিপিএ ৫ প্রাপ্ত সকল বিষয়ের উপর সর্বোচ্চ ৬৮ গ্রেড পয়েন্ট ধরে প্রাপ্ত জিপিএ এর ভিত্তিতে মেধাক্রম নির্ধারণ করতে হবে (১৪ বিষয়ের প্রতি বিষয়ে গ্রেড পয়েন্ট ৫ হিসেবে ১৪x৫= ৭০ হওয়ার কথা। কিন্তু চতুর্থ বিষয়ে ২ পয়েন্ট বাদ দেয়ার কারণে সর্বোচ্চ পয়েন্ট ৬৮ উল্লেখ করা হয়েছে) ২০১৮ সালে এসএসসি পাশকৃত শিক্ষার্থীদের। ক্ষেত্রে জিপিএ-৫ প্রাপ্ত সকল বিষয়ের উপর সর্বোচ্চ ৫৩ গ্রেড পয়েন্ট ধরে প্রাপ্ত জিপিএ এর ভিত্তিতে মেধাক্রম নির্ধারণ করা হবে (১১ বিষয়ের প্রতি বিষয়ে গ্রেড পয়েন্ট ৫ হিসাবে ১১x৫=৫৫ হওয়ার কথা। কিন্তু চতুর্থ বিষয়ে ২ পয়েন্ট বাদ দেয়ার কারণে সর্বোচ্চ পয়েন্ট ৫৩ উল্লেখ করা হয়েছে। ২০১৭ সালে এসএসসি পাশকৃত শিক্ষার্থীদের ক্ষেত্রে জিপিএ-৫ প্রাপ্ত সকল বিষয়ের উপর সর্বোচ্চ ৪৮ গ্রেড পয়েন্ট ধরে প্রাপ্ত জিপিএ এর ভিত্তিতে মেধাক্রম নির্ধারণ করতে হবে। (১০ বিষয়ের প্রতি বিষয়ে গ্রেড পয়েন্ট ৫ হিসাবে ১০x৫=৫০ হওয়ার কথা। কিন্তু চতুর্থ বিষয়ে ২ পয়েন্ট বাদ দেয়ার কারণে সর্বোচ্চ পয়েন্ট ৪৮ উল্লেখ করা হয়েছে)। এক্ষেত্রে ৬৮ পয়েন্ট ও ৫৩ পয়েন্ট কে, ৪৮ পয়েন্টের সাথে সমতুল্য করে হিসাব করা হবে। সাধারণ শিক্ষা বাের্ডের পয়েন্ট, উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের এসএসসির পয়েন্ট, মাদ্রাসা শিক্ষা বাের্ডের পয়েন্ট ও কারিগরি শিক্ষা বাের্ডের পয়েন্ট এবং ও লেভেলের পয়েন্ট সমতুল্য করে মেধাক্রম নির্ধারণ করা হবে। (খ) ভর্তির ক্ষেত্রে সমান জিপিএ প্রাপ্তদের মেধাক্রম নির্ধারণের ক্ষেত্রে সাধারণ গণিত অথবা উচ্চতর গণিত বিজ্ঞানে প্রাপ্ত জিপিএ বিবেচুনা করা হবে। (গ) নীতিমালার খ অনুচ্ছেদের অলােকে মেধাক্রম নির্ধারণ করা সম্ভব না হলে পর্যায়ক্রমে ইংরেজী, পদার্থ বিজ্ঞান বা রসায়নে অর্জিত গ্রেড পয়েন্ট বিবেচনায় আনতে হবে। (ঘ) কুখ,গ অনুচ্ছেদের আলােকে মেধাক্রম নির্ধারণ করা সম্ভব না হলে বর্ণিত একই নিয়মে প্রাপ্ত নম্বরের ভিত্তিতে বিষয়টি নিষ্পত্তি করা হবে। (ঙ) টেক্সটাইল ইনস্টিটিউট, দিনাজপুরে মেধাক্রম অনুযায়ী প্রথমে ১ম শিফট ও পরবর্তীতে ২য় শিফট পূরণ করা হবে। ৯. লক্ষ্যণীয় বিষয়ঃ (ক) একটি টেলিটক মােবাইল ফোনের মাধ্যমে একাধিক আবেদন করা যাবে। তবে আবেদনের ২য় ধাপে সম্মতি জানানাের সময় যােগাযােগের জন্য আবেদনকারীর নিজের যে কোন অপারেটরের) একটি মােবাইল নম্বর দিতে হবে। (খ) নিদিষ্ট তারিখের মধ্যে দিনে বা রাতে যে কোন সময় এমনকি বন্ধের দিনেও আবেদন করা যাবে। (গ) ভর্তি সংক্রান্ত ব্যাপারে কোন সমস্যা দেখা দিলে বা কোন তথ্য জানতে ০১৯৫৪০৮৩৪৭৯ (বস্ত্র অধিদপ্তর), ০১৫২১২১৯৬৬৩ (টাংগাইল), ০১৭৪৮৭৮৯২০৫ (গৌরনদী), ০১৭১৭৬৭৬৭০৩ (দিনাজপুর), ০১৭১২৫৯২৬৫১ (নাটোর), ০১৭৭৬-৮৬০১৮6 (রংপুর), ০১৯১৩৪২১৬১৬ (চট্টগ্রাম) ০১৭৩৯৮৪০১৮৫ (খুলনা) নম্বরে (অফিস চলাকালীন সময় ৯টা থেকে ৫টা) যােগাযােগ করা যেতে পারে। (ঘ) ভর্তি সংক্রান্ত তথ্যাবলী জানার জন্য নিন্মােক্ত ওয়েবসাইট ভিজিট করা যেতে পারে। www.dot.gov.bd, www.titangail.gov.bd , www.dtec.edu.bd, www.teletalk.com.bd, www.nti.gov.bd (ঙ) ভর্তি সংক্রান্ত যে কোন ব্যাপারে ভর্তি কমিটির সিদ্ধান্তই চুড়ান্ত বলে বিবেচিত হবে। (বিঃ দ্রঃ এই বিজ্ঞপ্তিই বাংলাদেশ কারিগরি শিক্ষা বাের্ডের অধিভুক্ত সকল সরকারি টেক্সটাইল ইন্সটিটিউটে ভর্তির জন্য একমাত্র বিজ্ঞপ্তি)।

Similar Posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *